বাঙালিনিউজ

বাঙালিনিউজ
নিজস্ব প্রতিবেদক

যে দল দুর্নীতিতে চ্যাম্পিয়ন, যে দলের প্রধান দুর্নীতির কারণে জেলে বন্দী, যে দলের গঠনতন্ত্র দুর্নীতির পক্ষে তৈরি করা হয়েছে, সেই দলের মুখে বিচারহীনতার সংস্কৃতির কথা শোভা পায় না। বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের এ কথা বলেছেন।

কাদের বলেন, বিচারহীনতার সংস্কৃতিতে বিশ্বরেকর্ড গড়েছিল বিএনপি। তাই তাদের মুখে বিচারহীনতার অভিযোগ মানায় না।

বিচারহীনতার কারণেই বরগুনার মতো একের পর এক নৃশংস ঘটনা ঘটছে-বিএনপির এমন অভিযোগের জবাবে এক সংবাদ সম্মেলনে ওবায়দুল কাদের এ কথা বলেন। আজ ২৮ জুন ২০১৯ শুক্রবার বেলা ১২টার দিকে ধানমন্ডির ৩ নম্বর সড়কে আওয়ামী লীগ সভানেত্রীর রাজনৈতিক কার্যালয়ে এই সংবাদ সম্মেলন অনুষ্ঠিত হয়।

রিফাত হত্যার ব্যাপারে সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের বলেন, এখন পর্যন্ত ৩ জন আসামি গ্রেফতার হয়েছে। সবকিছু রাতারাতি সম্ভব হয় না। যারা অপরাধ করেছে সকলকেই বিচারের আওতায় আনা হবে। অপরাধী অপরাধ করে পালিয়ে থাকার চেষ্টা করবে, এটাই স্বাভাবিক। বাকিদেরও গ্রেফতার করা হবে।

আওয়ামী লীগের সদস্য নবায়ন ও সদস্য সংগ্রহ অভিযান পরিচালনা সম্পর্কে ওবায়দুল কাদের বলেন, জাতীয় নির্বাচনের মধ্য দিয়ে অনেক নতুন মুখ আওয়ামী লীগের সঙ্গে যুক্ত হয়েছেন। তাদেরকে সদস্য করা হবে। কাদের জানান, এক জুলাই থেকে শুরু হবে আওয়ামী লীগের সদস্য সংগ্রহ অভিযান, যার প্রধান লক্ষ্য তরুণ ও নতুন ভোটার।

জামায়াত-বিএনপির লোকদের কি সদস্য করা হবে? এমন প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রী বলেন, জামায়াত-বিএনপির লোককে সদস্য করার প্রশ্নই আসে না। তিনি বলেন, যাকে সদস্য করা হবে, তার ব্যাপারে খতিয়ে দেখা হবে।

ওবায়দুল কাদের আরো বলেন, জামায়াত-বিএনপি পরিবার অথবা যুদ্ধাপরাধী পরিবারের লোককে সদস্য করা হবে। কারণ ৪৭ বছর পরে এমন বিষয় দেখার যৌক্তিকতা নেই। যাকে সদস্য করা হবে, তাকেই খতিয়ে দেখা হবে।

নতুনরা নিয়মতান্ত্রিকভাবে এগিয়ে আসুক আমরা তাদেরকে স্বাগত জানাবো। নতুন ফুল ফুটুক এটা আমরা চাই।

জামায়াত এখন নিজেদের দেশ প্রেমিক দল হিসেবে পরিচয় দিচ্ছে, এ ব্যাপারে এক প্রশ্নের জবাবে মন্ত্রী বলেন, জামায়াতের কার্যক্রমের মাধ্যমে দেখা যাবে তারা দেশ প্রেমিক হয়েছে কিনা। আমি হঠাৎ করে বললাম আমি ভালো হয়ে গেলাম, এটা তো আর গ্রহণযোগ্য হবে না। তাদের কার্যক্রমে এটা প্রকাশ পাবে।

বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের নতুন রাজনৈতিক মঞ্চ নিয়েও কথা বলেন। নতুন ‘জাতীয় মুক্তি মঞ্চ’কে স্বাগত জানিয়ে তিনি বলেন, ২০ দল বেগম খালেদা জিয়াকে মুক্ত করতে পারে নি। নতুন মঞ্চ পারে কি না দেখা যাক।

আওয়ামী লীগের ২১তম জাতীয় সম্মেলন সম্পর্কে মন্ত্রী বলেন, তিন বছরের মধ্যে সম্মেলন করার নিয়ম। আমাদের গঠনতন্ত্র অনুযায়ী নিয়ম মেনে কার্যক্রম চলছে এবং এই বছরের মধ্যেই সম্মেলন করা হবে।

ছাত্রলীগের কমিটির ব্যাপারে প্রশ্নের জবাবে আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক বলেন, প্রধানমন্ত্রী আমাদের দলের সুপ্রিম। তিনি এ ব্যাপারে চারজনকে দায়িত্ব দিয়েছেন। তাদের তথ্যানুসারে সিদ্ধান্ত গ্রহণ করা হবে। যারা দায়িত্ব পালন করছে, তারা এর জবাব দেবে।

সংবাদ সম্মেলনে আরও উপস্থিত ছিলেন আওয়ামী লীগের সাংগঠনিক সম্পাদক এনামুল হক শামীম, আওয়ামী লীগের দফতর সম্পাদক আব্দুল সোবাহান গোলাপ প্রমুখ।

Print Friendly, PDF & Email