বাঙালিনিউজ

বাঙালিনিউজ
ক্রীড়া ডেস্ক

আসন্ন ইংল্যান্ড বিশ্বকাপ ক্রিকেটে তার প্রতিপক্ষ রাষ্ট্র ের সঙ্গে খেলবে কিনা তা নিয়ে ে বিতর্ক শুরু হয়েছে। কারণ, দেশটির কাশ্মীর রাজ্যের পুলওয়ামায় জঙ্গি হামলার ক্ষোভ ও ঘৃণার জের ক্রিকেটেও পড়েছে। এই ইস্যুতে পুরো এখন দু’ভাগে বিভক্ত। এক পক্ষ বলছে বিশ্বকাপে পাকিস্তানের সঙ্গে ম্যাচ বয়কট করতে। আরেক পক্ষ বলছে খেলে জয় ছিনিয়ে আনতে।

প্রথম পক্ষের সমর্থন অনেক বেশি। সেখানে পেশাদারী মানসিকতার ওপরে জায়গা পাচ্ছে দেশবাসীর আবেগ ও পাকিস্তানের প্রতি ধিক্কার ও ঘৃণা। দ্বিতীয় পক্ষ জোর দিচ্ছে পেশাদারীত্বকে। সেখানেও আবেগ, ঘৃণা, ক্ষোভ ও জিদ আছে। আছে পাকিস্তানকে পরাস্ত করে প্রতিশোধ নেওয়ার শপথ। এই পক্ষে আছেন ভারতের কিংবদন্তি ব্যাটসম্যান সুনিল গাভাস্কারের মতো ক্রিকেটাররা। আর তাদের বিপরীত পক্ষে আছেন হরভজন সিং, আজহারউদ্দিনের মতো সাবেক ও যুজবেদ্র চাহালের মতো বর্তমান ক্রিকেট তারকারা।

আসলে ভারতনিয়ন্ত্রিত কাশ্মীরে সিআরপিএফ জওয়ানদের উপর সন্ত্রাসী হামলায় ৪০ জন জোয়ান নিহত হওয়ার ঘটনায় ক্ষোভে ফুঁসছে পুরো ভারত। এই পরিপ্রেক্ষিতে ইংল্যান্ড বিশ্বকাপে পাকিস্তানকে বয়কট করতে বলছেন অনেকে। এই অনেকের তালিকায় আছেন অনেক সাবেক ক্রিকেটাররাও। আর ভিন্নমতও আছে।

যেমন কিংবদন্তি ভারতীয় ব্যাটসম্যান সুনীল গাভাস্কার চান, বিশ্বকাপে পাকিস্তানের বিপক্ষে খেলুক ভারত। আর সেই ম্যাচ জিতে প্রমাণ করুক ভারতই সেরা। তার সঙ্গে একমত প্রকাশ করেছেন আরেক ক্রিকেট কিংবদন্তি শচীন টেন্ডুলকার। আসন্ন বিশ্বকাপে পাকিস্তানের বিপক্ষে ম্যাচটি না খেলে তাদের দুই পয়েন্ট দিয়ে দেওয়ার পক্ষে নন শচীন। তার মতে, এমনটা হলে উপকার হবে পাকিস্তানেরই।

গতকাল ২২ ফেব্রুয়ারি ২০১৯ শুক্রবার, ভারতীয় সংবাদ সংস্থা পিটিআইকে শচীন বলেন, ‘বিশ্বকাপে সবসময় পাকিস্তানকে হারিয়েছে ভারত। সময় হয়েছে তাদের আরও একবার হারানোর। আমি ব্যক্তিগতভাবে চাই না তাদের দুই পয়েন্ট এমনি এমনি দিয়ে দিতে, আর টুর্নামেন্টে সাহায্য করতে।’

‘তবে এটা বলার পরও আমি বলবো, আমার কাছে ভারতই সবার আগে। তাই আমার দেশ যে সিদ্ধান্ত নেবে, আমি হৃদয় দিয়ে সেটা সমর্থন করবো।’

শচীন এমনটা চাইলেও এর ঠিক বিপরীত অবস্থান হরভজন সিং, আজহারউদ্দিনের মতো সাবেক ও যুজবেদ্র চাহালের মতো বর্তমান ক্রিকেট তারকারা। তারা ক্রিকেটে পাকিস্তানকে বয়কটের পক্ষে। যদিও গাভাস্কার বলছেন, ১৬ জুনের বিশ্বকাপ ম্যাচ না খেললে পরাজয় হবে ভারতের।

গতকাল ২২ ফেব্রুয়ারি শুক্রবার ভারতীয় ক্রিকেট কন্ট্রোল বোর্ডের (বিসিসিআই) নিয়ন্ত্রক সংস্থা কমিটি অব অ্যাডমিনিস্ট্রেটর্স (সিওএ) সিদ্ধান্ত নিয়েছে, পাকিস্তানের সঙ্গে বিশ্বকাপের ম্যাচ না খেলা নিয়ে এখনই কোনো সিদ্ধান্তে যাবে না তারা। উল্লেখ্য, আগামী ৩০ মে থেকে যুক্তরাজ্যে বসবে এবারের ওয়ানডে বিশ্বকাপের আসর।

Print Friendly, PDF & Email

Related posts