বাঙালিনিউজ

বাঙালিনিউজ
চট্টগ্রাম প্রতিনিধি

চট্টগ্রামের মিরসরাইয়ে সন্দেহভাজন একটি জঙ্গি আস্তানায় র‍্যাব গতকাল ০৪ অক্টোবর ২০১৮ বৃহস্পতিবার রাত ৩টা থেকে ভোর পর্যন্ত অভিযান চালিয়েছে। এ সময় ব্যাপক গোলাগুলি ও বেশ কয়েকটি বিস্ফোরণের ঘটনা ঘটে। ভোরের দিকে ওই বাড়িতে বেশ কয়েকটি বিস্ফোরণের পর গোলাগুলি বন্ধ হয়ে যায়।

গোলাগুলি বন্ধের পর, ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কের পাশে জোরারগঞ্জ থানার উত্তর সোনাপাহাড় গ্রামের ওই একতলা বাড়ি ও আশপাশে তল্লাশি চালিয়ে বেশ কিছু বিস্ফোরক উদ্ধার করেছে র‌্যাবের বোমা নিস্ক্রীয়কারী দল।

র‌্যাবের গণমাধ্যম শাখার পরিচালক কমান্ডার মুফতি মাহমুদ খান ঘটনাস্থলে স্ংবাদিকদের বলেছেন, তাদের কাছে গোয়েন্দা তথ্য ছিল যে ওই বাড়িতে একজন নারী জঙ্গিসহ জেএমবির ৪ জন সদস্য ছিল। তবে বোমা নিস্ক্রীয়কারী দলের তল্লাশি শেষ হওয়ার আগে হতাহতের সংখ্যা নিশ্চিত করে বলা যাচ্ছে না।

র‌্যাব জানায়, অভিযানে গোলাগুলির কারণে রাত সাড়ে ৩টার দিকে ঢাকা-চট্টগ্রাম মহাসড়কে যানবাহন চলাচল বন্ধ করে দেওয়া হয়। ভোরের দিকে ওই বাড়িতে বেশ কয়েকটি বিস্ফোরণের পর গোলাগুলি বন্ধ হলে, নিয়ন্ত্রিতভাবে ফের যানবাহন চলাচল শুরু হয়।

তবে র‌্যাব সদস্যরা এখনও ওই বাড়ি এবং আশপাশের এলাকা ঘিরে রেখেছেন। কিছুটা দূরে মহাসড়কের পাশে ভিড় করছেন কৌতুহলী জনতা।

চৌধুরী ম্যানশন নামের ওই বাড়ির মালিক মাজহারুল হক নামের এক ব্যক্তি। তিনি অন্য এলাকায় এক বাড়িতে থাকেন। বাড়ির মালিক এবং কেয়ারটেকারকে জিজ্ঞাসাবাদের জন্য আটক করেছে র‌্যাব। পাঁচ কক্ষের ওই বাড়ি ভাড়া দেওয়ার সময় ভাড়াটিয়াদের জাতীয় পরিচয়পত্র রাখা হয়নি বলে প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে র‌্যাব কর্মকর্তাদের জানিয়েছেন তারা।

Print Friendly, PDF & Email